Logo
শিরোনাম :
লালপুরে নৌকা প্রতিকের প্রার্থী বাতিলের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন নাটোরে এক সাথে ৩ শিশুর জন্ম মানিকগঞ্জে ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির মানববন্ধন মানিকগঞ্জে চালক হত্যা মামলায় ছয়জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ড মানিকগঞ্জে হাসপাতাল ও পাসপোর্ট অফিস থেকে ১৬ দালাল আটক দৌলতপুরে বাচামারা ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী ফরিদ আহম্মেদ দলীয় মনোনয়ন ফরম নিলেন নাগরপুরে ডির্ভোসকৃত স্বামীর বাড়ীতে অবস্থান কিশোরীর মানিকগঞ্জে জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস পালিত ঘিওরে প্রাক্তন ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে দুই শিশুকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে মামলা সৈয়দপুরে দিনে দুপুরে চালকের মাথায় আঘাত করে হাসপাতাল থেকে ইজিবাইক ছিনতাই 
নোটিশ :
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি : আলহাজ্ব এ.এম নাঈমূর রহমান দূর্জয় ,সম্পাদক ও প্রকাশক মো: জালাল উদ্দিন ভিকু,সহ-মফস্বল সম্পাদক মো: জাহিদ হাসান হৃদয় ।

মানিকগঞ্জে ব্যস্ত সময় পার করছে ৫ শতাধিক ঢাক- ঢোল তৈরির কারিগররা

রিপোর্টার / ১৪৮ বার
আপডেটের সময় : শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০২১

রামপ্রসাদ সরকার দীপু, স্টাফ রিপোটার:-২৪ সেপ্টেম্বর-২০২১,শুক্রবার।
হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। দুর্গাপূজা উদযাপনে ঢাক- ঢোলের ব্যবহার অপরিহার্য। কাজেই ঢাক- ঢোলের কাজে নিয়োজিত মানিকগঞ্জের ৭টি উপজেলাতে প্রায় ৬শতাধিক পরিবারের লোকজন ব্যস্ত সময় পার করছেন। অন্যান্য বছরের তুলনায় এবার ঢাক -ঢোলের চাহিদা রয়েছে প্রচুর । জেলা সদর, ঘিওর , দৌলতপুর, সিংগাইর, সাটুরিয়া, হরিরামপুর, শিবালয়ে মুচিপারা লোকজন ব্যস্ত সময় পারকরছেন। তারা ঢাক- ঢোল, তবলা, কংগো, খোল, বংগো, দোতারা, হারমোনিয়ামের মতো বাদ্যযন্ত্র তৈরি করেন। এক সময় জেলার চাহিদা মিটিয়ে দেশের বিভিন্ন স্থানে পাঠানো হতো। ঢাকা , ময়মনসিংহ, ভৈরব, নারায়নগঞ্জসহ প্রায় ১০টি জেলাতে বিভিন্ন ধরনের বাদ্যযন্ত্র তৈরি করে বিক্রয় করতো। কিন্তু আধুনিক যন্ত্রপাতি এবং সাউন্ড সিস্টেমের কারনে সারা বছর বেচা কেনা কম থাকলেও দুর্গাপূজার সামনে এ পেশার লোকজনের দম ফেলার সময় নেই
উপজেলার বালিয়াখোড়া গ্রামের নারায়ন সরকার অখিল দাশ, সাংবাদিকদের জানান, বর্তমানে বিভিন্ন ধরনের চামরা দাম বেশি থাকায় এবং কাঠের দাম বেশি থাকায় গ্রামবাংলার ঐতিহ্যবাহী ঢাক- এবং ঢোলের তারা তৈরি ককরতে চাননা। বাপ দাদারে পৈতিক পেশার কারনে তারা এই পেশায় জড়িত হয়েছেন। তারা বলেন, আগে কাঠের তৈরি একটি ঢোল বিক্রি হতো ৪ হাজার থেকে পাঁচ হাজার টাকা। মাটির তৈরি খোল বিক্রি হতো চারশ’ থেকে ছয়শ’ টাকা। তাতেই আমাদের অনেক লাভ হতো। এখন কাঠের তৈরি একটি ঢোলের দাম পড়ে আট থেকে বার হাজার টাকা। টিন দিয়ে তৈরি একটি ঢোলের দাম পরে পাঁচ থেকে ছয় হাজার টাকা। মাটির খোলের দাম পরে দুই থেকে তিন হাজার টাকা। কিন্তু বর্তমানে আধুনিক যন্ত্রপাতির দাপটে এসব যন্ত্রপাতির চাহিদা একেবারে কমে গেছে। শুদু পূজা এল কদর বাড়ে। সারা বছরকাজই পাওয়া যায়না। তাই ঢাক- ঢোল তৈরির আগ্রহ তারা হাড়িয়ে ফেলেছেন। নকুল দাশ , রামকৃষ্ণ দাশ, হারান দাশ জানান, ঢোল তৈরিতে কাঁচামাল হিসাবে দেশীয় আম, জাম, রেইট্রি কড়ই, ওমেহগনি গাছ ব্যবহার করা হতো। আর ঢাকের ছাউনি জন্য ছাগল, গরু, মহিষ, ওবেড়ার চামরা ব্যবহার করা হতো। এখন কাঁচা মালের দাম বেড়ে যাওয়ায় আগের মতো আর ঐতিহ্যবাহী বাদ্যযন্ত্রগুলোর কদর না থাকায় কমে গেছে তাদের উৎপাদিত পণ্যের দাম। তাই খরচ কমোতে তারা কাঠের বদলে তারা মাটি ওটিন দিয়ে তৈরি হচ্ছে খোল। তিনি আরো বলেন, এক সময় দেমের বিভিন্ন স্থান থেকে কাজের তৈরির জন্য তাদের কাছে অর্ডার আসতো। কিন্তু এখন আর অর্ডার আসেনা। সারা বছর অপেক্ষা করতে হয় কখন দুর্গা পূজা আসবে। তবে এবার দুর্গা পূজাতে তাদের অনেক অর্ডার রয়েছে। বাদ্যযন্ত্র তৈরিতে ভোর বেলা থেকে টুক ঠাক শব্দে ব্যস্ত সময় কাটাতে কারিগরদের।
সরেজমিন পরিদর্শন করে দেখা গেছে, উপজেলার গ্রামে পুরষের পাশাপাশি মহিলারাও খোল ,ডুগি তবলার বিভিন্ন কাজে সহযোগিতা করছে। সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত তারা নিজের বাড়িতে বসে তাদে দৈনন্দিন কাজকর্মের ফাঁকে পৈতিক পেশার কাজও করে থাকেন। তবে তাদের অনেকের ছেলে মেয়েরা লেখাপড়া করেন। এ পেশায় এখন কেউ আর আসতে চায়না।
উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামীলীগ সভাপতি অধ্যক্ষ মোঃ হাবিবুর রহমান জানান, সরকারি ভাবে এ পেশার লোকজনের তালিকা করা হয়েছে। পর্যায়ক্রমে তাদের সুদমুক্ত ঋণ দেওযা হবে। এবং সরকারিভাবে সাহায্য সহযোগিতা করা হবে। বর্তমান সরকার এ সম্প্রদায়ের লোকজনের অর্থনৈতিকভাবে এগিয়ে নিতে নানা ধরনের পরিকল্পনা গ্রহন করছে। ঘিওরে যাচাই বাছাই শেষ হয়েছে দ্রæত এ পেশার লোকজনের শধ্যে সুধ বিহিন ঋন বিতরনের ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।। এলাকার অভিঞ্জ মহল ও শুশিল সমাজের প্রতিনিধিরা বাংলাদেশের কৃষ্টি সাহিত্য সভ্যতা টিকিয়ে রাখার স্বার্থে এ পেশার লোকজনের দিকে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি দেওয়া প্রয়োজন বলে তারা জানান।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ

Theme Created By ThemesDealer.Com